৪০ বছর ক্রিকেট খেলেছি, আমাকে বোঝাতে এসো না

imranবিশ্বকাপের আগে পাকিস্তান জাতীয় দলের প্রস্তুতি নিয়ে ভীষণ চিন্তিত দেশটির প্রধানমন্ত্রী ও সাবেক অধিনায়ক ইমরান খান। এক বৈঠকে পিসিবি কর্মকর্তাদের ধুয়ে দিয়েছেন সাবেক এই অলরাউন্ডার ।

পাকিস্তান ক্রিকেট গত বছর থেকেই ওয়ানডেতে চূড়ান্ত অধারাবাহিক। এদিকে দুয়ারে কড়া নাড়ছে ওয়ানডে বিশ্বকাপ। তার আগে পাকিস্তানের জাতীয় দল টানা হারে অকূলপাথারে।

এই অবস্থার যত দ্রুত সম্ভব পরিবর্তন চান। আর তাই বুধবার পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের (পিসিবি) সঙ্গে বৈঠকে বসেছিলেন। সেখানে পিসিবি কর্মকর্তাদের চরম সমালোচনাই করেছেন কিংবদন্তি এই অলরাউন্ডার।

আফগানিস্তান, হংকং ও জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ম্যাচগুলো বাদ দিলে গত বছর থেকে ওয়ানডেতে পাকিস্তানের জয় খুঁজে পেতে কষ্ট হবে।

এ সময় চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ভারতের বিপক্ষে দুটি ওয়ানডে খেলে দুটিতেই হেরেছে দলটি। হেরেছে বাংলাদেশের বিপক্ষে একটি ওয়ানডেতেও। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে চলতি পাঁচ ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজের প্রথম তিনটিতেই হেরেছে পাকিস্তান।

আর নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে আট ম্যাচে জয় মাত্র একটি। বিশ্বকাপের আগে এই যদি হয় জাতীয় দলের পারফরম্যান্স, তাহলে আশা থাকে কতটুকু?

ইমরান এই আশা পুনরুজ্জীবিত করতেই বৈঠক করেছেন। জিয়ো টিভি জানিয়েছে, সেই বৈঠকে পিসিবি কর্মকর্তাদের তিনি বলেছেন, পাকিস্তান ক্রিকেটে নানা রকম সমস্যা সমাধান করতে হলে পিসিবি কর্তাদের ব্যক্তিগত স্বার্থ দূরে রাখতে হবে।

ইমরানকে বোঝাতে নানা যুক্তি পেশ করলে সাবেক এই পেসার নাকি সোজাসাপ্টাই বলেন, ‘৪০ বছর ধরে ক্রিকেট খেলেছি। আমাকে বোঝানোর দরকার নেই।’ পাকিস্তানের হয়ে ২১ বছরের আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ারে ৮৮ টেস্ট ও ১৭৫ ওয়ানডে খেলেছেন ইমরান।

পাকিস্তানের সর্বকালের সেরা ক্রিকেটার হিসেবেও তাঁকে বিবেচনা করা হয়। খেলা ছেড়ে রাজনীতিতে জড়িয়ে পড়ার পর এখন দেশটির প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্ব সামলাচ্ছেন।

অস্ট্রেলিয়ার ঘরোয়া ক্রিকেটের আদলে পাকিস্তানের প্রথম শ্রেণির ক্রিকেট সাজানোর পরামর্শ দিয়েছেন ইমরান। মাঠ ও মাঠের বাইরে বেশ কিছুদিন ধরেই ভুগছে পাকিস্তানের ক্রিকেট।

পাকিস্তানের মাটিতে এক দশক হয়ে গেল বড় কোনো দল সফরে যায়নি। আইপিএলেও খেলার সুযোগ পান না পাকিস্তানের ক্রিকেটাররা। আর ভারতের সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় সিরিজও হচ্ছে না অনেক বছর হয়ে গেল। ইমরান এসব অচলায়তন ভেঙে যত দ্রুত সম্ভব সবকিছুর পরিবর্তন চান।

এ ছাড়া জাতীয় দলে খেলোয়াড় নির্বাচনের ব্যবস্থাও ঢেলে সাজানোর পরামর্শ দিয়েছেন ইমরান। এ নিয়ে পিসিবির এক কর্তার উদ্ধৃতি প্রকাশ করেছে সংবাদমাধ্যম, ‘মানি (পিসিবির সভাপতি) প্রধানমন্ত্রীকে আশ্বস্ত করেছেন, জাতীয় দলের খেলোয়াড় নির্বাচনের প্রক্রিয়া উন্নত করতে বোর্ড সব রকম চেষ্টাই করবে।’