করোনার ভ্যাকসিন আবিষ্কার!

vaccineবিশ্বব্যাপী মহা’মারি আকার ধারণ করা করোনাভাইরাসে মৃত্যুর মিছিল শুধুই দীর্ঘ হচ্ছে। প্রতি মিনিটে বাড়ছে মৃতের সংখ্যা। এখন পর্যন্ত বিশ্বের ১৯৫টি দেশ ও অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়েছে করোনাভাইরাস। আর প্রাণঘাতী এই ভাইরাসে এখন পর্যন্ত আক্রান্তের সংখ্যা ৩ লাখ ৮১ হাজার ৬৪৩ এবং মারা গেছে ১৬ হাজার ৫৫৮ জন। অপরদিকে চিকিৎসা শেষে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছে ১ লাখ ২ হাজার ৬৯ জন।

করোনার চিকিৎসায় বিভিন্ন দেশ গবেষণা করলেও অবশেষে সুফল পেয়েছে জাপান। দেশটির ওষুধ প্রস্তুতকারক প্রতিষ্ঠান অ্যানজেস ইনকর্পোরেট মঙ্গলবার দাবি করেছে, তারা এবং তাদের ব্যবসায়িক পার্টনার ওসাকা ইউনিভার্সিটি যৌথভাবে করোনাভাইরাস থেকে বাঁচার ভ্যাকসিন আবিষ্কার করেছে। স্বল্প সময়ের মধ্যে এটি প্রাণীর ওপর পরীক্ষা করা হবে।

এর আগে গত সপ্তাহে চীনের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, আগে থেকেই প্রস্তুত করে রাখা অন্য রোগের ওষুধ করোনা রোগীদের চিকিৎসায় ভালো ফল দিয়েছে। তবে ফুজি ফিল্মের তৈরি ওই ওষুধ ম্যালেরিয়া রোগের চিকিৎসায় ব্যবহারের জন্য তৈরি করা, কেবল করোনাভাইরাসের জন্য নয়।

এদিকে গত সপ্তাহেই যুক্তরাষ্ট্রের বিজ্ঞানীরা করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিন ক্লিনিক্যাল ট্রায়ালের কথা বলেছেন। ন্যাশনাল ইন্সটিটিউট অব অ্যালার্জি অ্যান্ড ইনফেকটিয়াস ডিজিস এবং যুক্তরাষ্ট্রের বায়োটেক প্রতিষ্ঠান মডের্না যৌথভাবে ওই ভ্যাকসিন আবিষ্কারের চেষ্টা করছে।

যদিও বিশেষজ্ঞদের দাবি, করোনার ভ্যাকসিন বাজারে আসতে আরো অন্তত এক থেকে দেড় বছর সময় লাগতে পারে।