অবশেষে প্রধানমন্ত্রীর ভবিষ্যৎবাণীই সত্যি হল!

pm_cricketআজ মঙ্গলবার সকালে একনেকের সভা ছিল পরিকল্পনা মন্ত্রনালয়ে। সে সভায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ছিলেন সভাপতি। তিনি সভা চলাকালীন উপস্থিত সবার উদ্দেশ্যে বলে ওঠেন, ‘তাড়াতাড়ি সভা শেষ কর, ’আজ খেলা আছে।‘

সে সভায় অন্যদের সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন পরিকল্পনা মন্ত্রী আ হ ম মোস্তফা কামাল। মন্ত্রী ক্রীড়াপ্রেমী প্রধানমন্ত্রীকে বলে ওঠেন, ‘আজ বাংলাদেশ জিততে পারবে না, হেরে যাবে।’ মন্ত্রীর মুখে এমন অপ্রিয় কথা শুনে তখন কিছুই বলেননি প্রধাণমন্ত্রী। দ্রুত সভা শেষ করে তার কক্ষে গিয়ে খেলা দেখতে থাকেন।

এরপর দুপুরে গণভবনে খেলা দেখছিলেন প্রধানমন্ত্রী। তখন টাইগারদের অবস্থা শোচনীয়। মুশফিকের আউটের পর ১৪৭ থেকে ১৭০ রানের মধ্যে নেই ৬ উইকেট। তখন এক কর্মকর্তা বলে উঠলেন পরিকল্পনা মন্ত্রীর সেই কথা, আজ হারবে বাংলাদেশ। তখন প্রধানমন্ত্রী কিছুটা রেগে গিয়ে বলেন, ‘তোমরা এত অল্পতে হতাশ হও কেন, আজ বাংলাদেশ জিতবে।‘

এর পরের ঘটনা সবার জানা। শেষের মোস্তাফিজ এবং সানজামুলের লড়াইয়ে দুইশো পার। এরপর বোলিংয়ে সাকিব-মোস্তাফিজ-ম্যাশদের নৈপুন্যে ৯১ রানের বিশাল জয় পায় টাইগাররা।

যেখানে খোদ ক্রিকেটাররাও হয়তো হতাশ হয়ে পরাজয় মেনে নেয়, সেখানেও আমাদের ক্রীড়াপ্রেমী প্রধানমন্ত্রী আশায় বুখ বেঁধে থাকেন ‘বাংলাদেশ জিতবে’ এই মন্ত্রে। তিনি মাঠে মানেই অথবা খেলা দেখা মানেই জিতে যায় বাংলাদেশ। সত্যিই আমাদের সবার প্রিয় প্রধানমন্ত্রী শুধু ক্রিকেটপ্রেমী নয় একজন ‘ক্রিকেটবোদ্ধা’ ও বটে।